প্রেমিক না থাকার ২০ টি সুবিধা!

প্রেমিক না থাকার ২০ টি সুবিধা!
5 (100%) 2 votes

প্রেমিক নেই বলে অনেকেই আফসোস করেন। অনেকেই চিন্তা করেন একটা প্রেমিক থাকলে কতই না মজার সময় কাটতো। কিন্তু কখনো কি ভেবে দেখেছেন প্রেমিক মানেই বিপদ। বিপদ সীমা অতিক্রম করলেই সমস্যা। সিংগেল লাইফে কোনো সীমাবদ্ধতা নাই। বিচ্ছেদের কষ্ট নেই, আলাদা টেনশন নেই। বান্ধবীরা প্রেমিক নিয়ে রিকশায় ঘুরছে, ফুসকা খাচ্ছে; চিকেন বিরিয়ানি, কোল্ডড্রিংস, আইসক্রিম খেতে খেতে স্বপ্নের জাল বুনছে, আপনি হিংসায় জ্বলছেন! আফসোস হচ্ছে, ইস আমার যদি একজন প্রেমিক থাকতো! কিন্তু জানেন কি, প্রেমিক না থাকার সুবিধা? সেটা জানলে অনেকেই হয়ত ভাববেন, যাক, একা আছি, এই বেশ ভালো আছি। আসুন জেনে নিই প্রেমিক না থাকার কয়েকটি সুবিধা সম্পর্কে।

আমাদের ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন

প্রেমিক

অফুরন্ত সময় – যাদের প্রেমিক আছে, তাদের জিজ্ঞেস করে দেখতে পারেন, তাদের কতজন বই পড়ার, খেলা দেখার বা মুভি দেখার সময় পান। একটা উত্তরই পাবেন, ‘সময়ই পাই না’। আর একা থাকলে নিজের ইচ্ছে মতো মুভি দেখা, গান শোনা, খেলা দেখার কত সময়!

নিজেই নিজের সিদ্ধান্ত নেওয়া – পেশার খাতিরে শহর বদলানো বা ঘুরতে যাওয়ার সময় আপনার যদি কোনো প্রেমিক না থাকে তাহলে চট করে সিদ্ধান্ত নিতে পারবেন। ব্যাগ নিলেন, আর চলে গেলেন। কিন্তু প্রেমিক থাকলে আলোচনা করতে হবে। এমনকি আপনার সিদ্ধান্ত বদলাতেও হতে পারে।

লাখো সুন্দরের ভিড়ে – একা থাকলে অন্য ছেলেদের দিকে তাকানোর সময় আপনার মনে কোনো অপরাধবোধ কাজ করবে না। যার সাথে ফ্লার্ট করবেন সেও খারাপ ভাববে না। আর সঙ্গে যদি প্রেমিক থাকে, আপনার দুঃসাহসই হবে না অন্য ছেলের দিকে তাকাতে।

একা থাকুন, স্লিম থাকুন – ব্রিটেনে এক জরিপে দেখা গেছে, যেসব মানুষ সম্পর্কে জড়ায়, তাদের ৬২ শতাংশের ওজন ৭ কেজি পর্যন্ত বেড়ে যায়। ডেটিংয়ের সঙ্গে ওজন বাড়ার সম্পর্ক রয়েছে বলে ওই জরিপের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে। একা থাকলে মানুষ প্রচুর পরিশ্রম করে আর তাতে ওজনও কম থাকে, মোটা হওয়ার ভয়ও থাকে না।

আরামের ঘুম – ‘ঘুম আসে না’- হঠাৎ বৃষ্টি’র সেই গানটার মতোই প্রেমিকদের অবস্থা। এটা সত্যিই অনেক মানুষ জানিয়েছেন যে, প্রেমে পড়লে রাতের বেশিরভাগ সময় ফোনে তার সঙ্গে কথা হয়, তাই ঘুম খুব কম হয়। আর যদি একা থাকেন কোনো চিন্তা-ভাবনা, ঝগড়া-ঝাটি ছাড়া নিশ্চিন্ত ঘুম। আহ, এর চেয়ে শান্তি আর কী আছে!

বিচ্ছেদের কষ্ট নেই – যুক্তরাষ্ট্রে প্রায় ৫০ ভাগ বিয়ে ভেঙে যায়। আর আর্থিক অসঙ্গতির কারণে অনেক পুরুষ চেয়েও তালাক পান না। এসব ঝামেলা এবং বিচ্ছেদের কষ্ট তাদেরই, যাদের প্রেমিক, প্রেমিকা, বান্ধবী বা স্ত্রী আছে। আপনার কী চিন্তা? আপনি তো একা, উপভোগ করুন জীবনটাকে।

বন্ধু যখন শত্রু – যারা একা থাকেন, তারা বন্ধু-বান্ধবদের সঙ্গে দারুণ সময় কাটাতে পারেন। সময়ের কোনো বাঁধা-ধরা থাকে না। আর যাদের প্রেমিকা আছে তাদের জিজ্ঞেস করুন, বন্ধুদের কেবল প্রতিশ্রুতিই দেওয়া হয়, কিন্তু বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই সেগুলো পূরণ করতে পারেন না। অথচ একলা থাকলে যখন খুশি বন্ধুদের সঙ্গে দেখা করুন, আড্ডা দিন, কোথাও ঘুরতে চলে যান। যাকে বলে, ‘দুনিয়াটা মস্ত বড়, খাও দাও ফুর্তি করো’।

যেখানে কোনো চাহিদা বা আকাঙ্ক্ষা নেই – প্রতিটি সম্পর্কেই কিছু আকাঙ্ক্ষা এবং চাহিদা থাকে। আর প্রেমিকদের অনেক চাহিদা পূরণ করতে গিয়ে প্রেমিকাদের নাভিশ্বাস উঠে যায়। তাই প্রেমিকা না থাকলে আপনি বাড়াতে থাকুন আপনার ব্যাংক ব্যালেন্স বা খরচ করুন আপনার ইচ্ছে মতো। এত স্বাধীনতা আর কোথায়! আর আলো-আঁধারিতে প্রেমিকের সঙ্গে বসে যে চিকেন ফ্রাই , বার্গার, শর্মা খাওয়ার স্বপ্ন দেখছিলেন, তার ব্যয়ভার বহনের কথা একবার ভেবেছেন কি? এছাড়া আরো যেসব সুবিধা আছে।

▪শান্তিতে ঘুমানো যায়!
▪সময় আর টাকা বাঁচে!
▪দেখতে কেমন লাগতেছে এইটা নিয়া তেমন না ভাবলেও চলে।
▪মধ্যরাতে মিসকল সংখ্যা জিরো থাকে।
▪নতুন নতুন SMS অফার খোজার দরকার হয়না।
▪দিনে চারবার মোবাইল রিচার্জ করতে হয়না।
▪যেকোনো ছেলের সাথে ভয় ছাড়াই কথা বলা যায়। আর সবচেয়ে ভালো হচ্ছে পুরো দুনিয়ারেই ভালোবাসা যায়।
▪মিথ্যা কথা বলার প্রয়োজন হয় না।

168 total views, 3 views today

এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে

আপনার মন্তব্য লিখুন

আমাদের ইউটিউব চ্যানেল সাবস্ক্রাইব করুন